আরাবুলের ডেরায় ১১টি আসনে জয় আইএসএফ-জোটের

নিজের গড় হাতছাড়া হল তৃণমূল নেতা আরাবুল ইসলামের। ভাঙড়ের পোলেরহাট ২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েত হাতছাড়া হল তৃণমূলের। এখানে তৃণমূল ১টি ও আইএসএফ এবং জমি কমিটি জয়ী হয়েছে ১১টি আসনে। আরাবুল ইসলাম পোলেরহাট ২ গ্রাম পঞ্চায়েত অঞ্চলের নেতা। তাঁর গড়ে বিরোধীদের জয় নিতান্তই তাৎপর্যপূর্ণ। এই বিষয়ে আরাবুলের প্রতিক্রিয়া, ‘আমি আগে থেকেই আঁচ করতে পেরেছি পোলেরহাট ২ কোনওমতে রক্ষা করা যাবে না। এখানে সাতটি প্রার্থী হেরেছে আমাদের। হতেই পারে। বাকি জায়গায় জিতেছি।” তিনি আরও বলেন, “ওই এলাকায় আমাদের কর্মীদের উপর লাগাতার অত্যাচার হয়েছে। প্রার্থীদের হুমকি দেওয়া হয়েছে। তাই জানতাম যে এখানে খারাপ ফল হবে।’

বস্তুত, পোলেরহাট গ্রাম ২ পঞ্চায়েতে একদিকে যেমন তৃণমূল রয়েছে অন্যদিকে রয়েছে আইএসএফ ও জমি জীবিকা বাস্তুতন্ত্র এবং পরিবেশ রক্ষ কমিটি। এই প্রথম তারা জোট করেছে। আর এই জোট করার পরই তৃণমূল এই এলাকায় জয়ী হতে পারবেন না বলে আঁচ করেন আরাবুল।

এদিকে এদিনের এই রেজাল্ট বের হওয়ার পর থেকেই ভাঙড়ে বিভিন্ন জায়গা থেকে বোমার আওয়াজ আসতে শুরু করে। পরিস্থিতি রক্ষার স্বার্থে বারুইপুর পুলিশ জেলার অ্যাডিশানাল এসপি তিনি কাশীপুর থানার বিরাট পুলিশ বাহিনীকে নিয়ে এলাকা ডমিনেশনে বের হন একই সঙ্গে মোবাইলে নির্দেশ দিচ্ছে অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটালেই তাঁকে গ্রেপ্তার করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twelve − three =