কিউমিনের তিন বছর উদযাপনে বিশেষ অফার

আইএইচসিএল অর্থাৎ ইন্ডিয়ান হোটেলস কোম্পানির কথা কে না জানে। কারণ, আইএইচসিএল হল হোটেল কোম্পানির মধ্যে ভারতের মাটিতে এই মুহূর্তে সবথেকে বড় গ্রুপ। এই সংস্থার তরফ থেকেই বাজারে আনা হয়েছিল ‘কিউমিন’ অ্যাপ। দেখতে দেখতে এই অ্যাপটির বয়স তিন বছর অতিক্রান্ত ইতিমধ্যেই।গত তিন বছরে এই অ্যাপটি কলকাতার তাজ বেঙ্গল ও ভিভান্ত এর বিশ্বমানের শেফদের দক্ষতার জেরে ডাইনিং-এ নিয়ে এসেছে এক যুগান্তকারী পরিবর্তন। আর তা হল এই সব শেফদের হাতে তৈরি সুস্বাদু খাবার খেতে কষ্ট করে আর হোটেলে আসতে হবে না। বাড়িতে বসেই মিলবে তাঁদের হাতে তৈরি মন ভরানো খাবার।

কিউমিনের এই তিন বছর বর্ষপূর্তির অনুষ্ঠানে এসে নিজের বক্তব্য রাখতে গিয়ে সংস্থার সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট (অপারেশনস) কে মোহনচন্দ্রন জানান, ‘তিন বছরে কিউমিনের এই পথচলা নজর কেড়েছে প্রত্যেকেরই। যেমন অসাধারণ উত্থান,তেমনই তার ধারাবাহিকতা। কিউমিনের সাহায্যে এখন ঘরেই পৌঁছে যাচ্ছে জনপ্রিয় হোটেল এবং রেস্তোরাঁর সব খাবার। যা কিউমিনকে একটা স্বাতন্ত্র্য বজায় রাখতে সাহায্য করেছে।‘ একইসঙ্গে তিনি এও জানান, ‘খাবার ডেলিভারির ক্ষেত্রে কিউমিন নিরাপত্তাই শুধু নয় তার সঙ্গে স্বাস্থ্যবিধির ক্ষেত্রে যে সব প্রোটকল রয়েছে তাও প্রতিক্ষেত্রে মেনে চলে। যে কারণে ডেলিভারির ক্ষেত্রে যে সব গাড়ি ব্যবহার করা হয় সংস্থার তরফ থেকে তা প্রতিটি উচ্চমানে স্যানিটাইজাইডও করা থাকে। আর প্যাকিংয়ের সময় ব্যবহার করা হয়, পরিবেশ বান্ধব বায়ো-ডিগ্রেডেবল উপকরণে তৈরি ইনসুলেশন বক্স।‘

এরই রেশ ধরে কিউমিনের তরফ থেকে কে মোহনচন্দ্রন এও জানান, ‘এই অ্যাপটির তিন বছর পূর্তির মাইলফলককে বিশেষ সম্মান জানাতে আইএইচসিএল-এর তরফ থেকে কিউমিন অ্যাপে দেওয়া হচ্ছে বিশেষ অফার। যা মিলবে ২৩ জুন থেকে ২৫ জুন পর্যন্ত। যেখানে ভেজিটেরিয়ানদের জন্য পাওয়া যাবে কুট্টি মির্চ পনির টিক্কা, বিটরুট এবং চিনাবাদাম কাটলেট, রাওয়া বাটাটা টিক্কি, মালাই ব্রোকোলি, মটরশুঁটি দিয়ে ভাজা মুগ ডাল, পনির হারা পেঁয়াজ, ক্রিস্টাল ভেজিটেবল ডাম্পলিং-এর মতো একাধিক অত্যন্ত সুস্বাদু ডিশ। এরই পাশাপাশি নন- ভেজিটেরিয়ানদের জন্য রয়েছে চিকেন টিক্কা কালি মির্চ, গন্ধরাজ ফিশ টিক্কা, গিলাফি সেখ কাবাব, কড়াই গোস্ত, ঢাকাই মাংস কষা, শ্রেডেড চিকেন, চিলি অয়েস্টার সস, বে প্রন, লেমন করিয়েন্ডার সস।আর ডেজার্ট হিসেবে পাওয়া যাবে জাফরানি রস মালাই, পান্তুয়া এবং পাঁচটি মশলাযুক্ত সিল্ক কেক, যা একমাত্র পাওয়া যায় কলকাতার তাজ বেঙ্গল এবং ভিভান্ত-এ।

এই ধরনের সুস্বাদু খাবার জন্য যেতে হবে না কোনও হোটেলে। ঘরে বসেই মিলবে এই সব সুস্বাদু ডিশ। এর জন্য যাঁরা ভেজিটেরিয়ান তাঁদের খরচ হবে মাত্র ২,২০০টাকা, তাও আবার দুজনের জন্য। আর যাঁরা নন-ভেজ তাঁদের ক্ষেত্রেও দু’জনের খরচ  মাত্র ২, ৪০০ টাকা।সঙ্গে যুক্ত হবে নির্ধারতি হারে শুল্ক।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

eighteen − 17 =