রেলমন্ত্রী পরিদর্শনের পরই বদলি খড়্গপুর ডিভিশনের ডিআরএম

রেলমন্ত্রী পরিদর্শনের মাত্র ২৪ ঘণ্টার মধ্যে বদলি হলেন খড়গপুর ডিভিশনের ডিআরএম। এটাকে রেলমন্ত্রকের তরফ থেকে‘রুটিন বদলি’ বললেও কোথাও একটা প্রশ্নচিহ্ন যেন থেকেই যাচ্ছে। কারণ, বুধবার দক্ষিণ পূর্ব রেলওয়ের খড়্গপুর ডিভিশনের খড়্গপুর স্টেশন পরিদর্শন করেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। এর পর ২৪ ঘণ্টা কাটতে না কাটতেই বদলি করা হয় খড়্গপুর ডিভিশনের ডিআরএম এম.এস হাসমি-কে। দক্ষিণ পূর্ব রেলওয়ে সূত্রে খবর, খড়্গপুর ডিভিশনের নতুন ডিআরএম হচ্ছেন কে.আর চৌধুরী। এদিকে এই বদলিকে রুটিন বদলি বলেই জানাচ্ছে দক্ষিণ-পূর্ব রেল। প্রসঙ্গত, এই খড়গপুর ডিভিশনের বালেশ্বরের কাছে বাহানাগা বাজার স্টেশন এলাকায় ঘটে যাওয়া ঘটনাও ভোলার কথা নয় করমণ্ডল এক্সপ্রেস দুর্ঘটনায় ২৮৮ জনের মৃত্যু হয়। ফলে সেই কারণেই প্রশ্ন উঠে গেল তাহলে কী সেই ঘটনারই কি কোপে পড়লেন কি না ডিআরএম তা নিয়েই। যদিও, রেলের তরফে জানানো হয়েছে নেহাতই রুটিন বদলি।

এদিকে, খড়্গপুর স্টেশনের সুরক্ষা ও নিরাপত্তা ব্যবস্থার সার্বিক উন্নতি এবং খড়্পুর শহরের সঙ্গে সমন্বয় রেখে স্টেশনকে ঢেলে সাজানোর পরিকল্পনা নিয়ে বুধবার স্টেশন পরিদর্শন করেন রেলমন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণব। পরিদর্শনের পর রেলমন্ত্রী জানান, ‘খড়্গপুর স্টেশন এশিয়ার অন্যতম বৃহৎ এবং ব্যস্ত স্টেশন। খড়্গপুর স্টেশনকে অমৃত ভারত স্টেশনের আওতায় আনা হয়েছে।তাই, স্টেশনের নিরাপত্তা ও সুরক্ষা ব্যবস্থা সহ সার্বিক বিষয় ঢেলে সাজানো হবে। শহরের সঙ্গে সমন্বয় করে কীভাবে কাজ করা যায় সেই পরিকল্পনাও নেওয়া হয়েছে। রেলের সার্বিক উন্নতির বিষয়ে যে সমস্ত পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে।’ একইসঙ্গে তিনি এও জানান, ‘খড়গপুর স্টেশনের ইলেকট্রনিক ইন্টারলকিং সিস্টেম এশিয়ার মধ্যে সর্ববৃহৎ ও জটিল। সেই সিস্টেমের সঙ্গে যুক্ত টেকনিশিয়ান, ইঞ্জিনিয়ার সহ সবার সঙ্গে আলোচনা হয়েছে।ইন্টারলকিং সিস্টেমকে আরও নিরাপদ ও সুরক্ষিত করার বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।’

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four × three =