রেলে শূন্য় পদ ২.৭৪ লাখ, জানানো হল আরটিআই তথ্যে

দেশে একদিকে যখন চাকরির বাজারে হাহাকার তখনই এক আরটিআই-এর উত্তরে সামনে এল নয়া তথ্য। দেশে শুধুমাত্র ভারতীয় রেলেই বর্তমানে শূন্যপদের সংখ্যা রয়েছে ২.৭৪ লাখ। যার মধ্যে ১.৭ লাখ শূন্যপদ রয়েছে রেলের নিরাপত্তা খাতে। এদিকে রেলের তরফে জানানো হয়েছে, নতুন নিয়োগ, পদোন্নতি এবং নন-কোর স্টাফদের মূল চাকরিতে নিয়ে এসে এই সমস্যার সমাধান করা হচ্ছে। সঙ্গে এও জানা গেছে, চন্দ্র শেখর গৌর নামে মধ্যপ্রদেশের এক কর্মী এই আরটিআই করে রেলের বিভিন্ন দপ্তরে কত পদ শূন্য রয়েছে তা জানতে চান। তাতে রেলের তরফে জানানো হয়, ২,৭৪,৫৮০ শূন্যপদ ফাঁকা রয়েছে সি গ্রুপে। যার মধ্যে রয়েছে সেফটি ক্যাটেগরির ১,৭৭,৯২৪ শূন্যপদও। আর এখানেই রেলের নিরাপত্তা খাতে ১.৭ লাখ বেশি শূন্যপদ থাকা, মোটেই আশাপ্রদ নয় বলেই মনে করা হচ্ছে।

আরটিআই-এর উত্তর দিতে গিয়ে রেলের তরফে জানানো হয়েছে, রেলের সেফটি ক্যাটাগরি বা নিরাপত্তা বিভাগে রেলের মোট ৯.৮২ লাখ পোস্ট রয়েছে। যেখানে ৮.০৪ লাখ পোস্টে কর্মী নিয়োগ হয়ে তাঁরা কাজ করছেন। ২০২৩ -এর জুন মাসের ১ তারিখের হিসেব অনুযায়ী রেলের নিরাপত্তা বিভাগে মোট পদের সংখ্যা ৯,৮২,০৩৭। যার মধ্যে কর্মী নিয়োগ রয়েছে ৮, ০৪,১১৩ সংখ্যক পদে ও ফাঁকা পদের সংখ্যা রয়েছে ১,৭৭,৯২৪।

আরটিআই-এ রেলের তরফে বলা হয়েছে, সরাসরি নিয়োগ, দ্রুত পদোন্নতি এবং নন-কোর কর্মীদের প্রশিক্ষণের পরে মূল চাকরিতে নিয়ে আসার মাধ্যমে এই সমস্যার সমাধানের চেষ্টা করা হচ্ছে। উল্লেখ্য, এই বিপুল শূন্যপদে নিয়োগের চেষ্টা অবশ্য হচ্ছে পুরোদমেই। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী যে রোজগার মেলায় বিপুল সংখ্যক নিয়োগপত্র দিচ্ছেন, তার মধ্যে থেকে একটি অংশ রেলেও নিয়োগ হচ্ছে। ইতিমধ্যেই রোজগার মেলা থেকে কয়েক দফায় রেলে নিয়োগও হয়ে গিয়েছে। এদিকে ২০২২-এর ডিসেম্বর মাসে সংসদে রেলমন্ত্রী অশ্বিনী কুমার বৈষ্ণব জানান, রেলে ৩.১২ লাখ নন-গ্যাজেটেড পদ শূন্য রয়েছে। সেফটি বিভাগের সঙ্গে যুক্ত কর্মীরা সরাসরি ট্রেন পরিচালনার কাজে জড়িত। এর মধ্যেই থাকেন লোকো পাইলট, ট্র্যাকপারসন, পয়েন্টসম্যান, বৈদ্যুতিক কাজ, সিগন্যাল এবং টেলিকম সহকারী, প্রকৌশলী, প্রযুক্তিবিদ, কেরানি, গার্ড/ট্রেন ম্যানেজারের মতো পদ। ফলে এই পদগুলি শূন্য থাকার অর্থ, পরিষেবার ক্ষেত্রেও হতে পারে  ঘাটতি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

4 × one =