বাড়ি যাওয়ার আর্জি বুদ্ধদেবের

অনেকটাই সুস্থ বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য। ৭৯ বয়সী প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী শুধু চিকিৎসক নয়, এদিন তাঁর সঙ্গে দেখা করতে আসা ভিজিটার্সদের সঙ্গে কথাও বলেছেন বলে হাসপাতাল সূত্রে খবর। আগের থেকে অনেক বেশি সজাগ ও সচেতন তিনি। বুধবার সকাল থেকেরাইলস টিউব খুলে ফেলারও কথাও বলেন চিকিৎসকদের। সূত্রের খবর, এদিন বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ ব্যক্তি দেখা করতে এলে তিনি তাঁর কাছে আম খাওয়ারও আর্জি জানান। কিন্তু এই মুহূর্তে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর শারীরিক পরিস্থিতি আম খাওয়ার মতো নন। তাঁকে এখনও রাইলস টিউব দিয়ে তরল খাবার খাওয়ানো হচ্ছে বলে খবর।

মেডিক্যাল বুলেটিনে দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, এদিন তাঁর জন্য গড়া মেডিক্যাল বোর্ডের চিকিৎসেকরা তাঁকে পরীক্ষা করে ও টেস্ট রিপোর্ট খতিয়ে দেখে পরবর্তী ট্রিটমেন্ট নিয়ে সিদ্ধান্ত নেন। চতুর্থ পর্যায়ের একটি অ্যান্টি বায়োটিক কোর্স শুরু করা হয়েছে, যা চলবে শনিবার পর্যন্ত। একইসঙ্গে চলছে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর ফিজিওথেরাপি। তাঁর শ্বাসপ্রশ্বাসের সমস্যা সমাধানে পালমোনারি ফিজিথেরাপি চালানো হচ্ছে বলে জানা গিয়েছে।

চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যের রক্তের সমস্ত প্যারামিটারই বর্তমানে সন্তোষজনক। রক্তচাপও নিয়ন্ত্রণে, রক্তে কমেছে ক্রিয়েটিনের মাত্রাও। সংক্রমণ আগের থেকে অনেক কমেছে বলে খবর। ভেন্টিলেশন থেকে বাইরে বার হওয়ার পর থেকে বাড়ি যাওয়ার জন্য অস্থির হলেও, বুদ্ধদেব বাবুর ডিসচার্জের তারিখ নিয়ে এখনও কোনও তথ্য মেলেনি। এদিকে মঙ্গলবার রাতে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর রক্তে হিমোগ্লোবিনের মাত্রা কম হওয়ায় তাঁকে এক বোতল রক্ত দেওয়া হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

twenty − 1 =